রাস্তায় মহিলারা কীভাবে আরও সতর্ক হবেন ? 

telangana-rape-murder-case-hyderabad-police-chief-shares-tips-on-womens-safety.png

বিগত কয়েক দিন ধরে ঘটে যাওয়া ঘটনা চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিচ্ছে নারী নিরাপত্তা যথাযথ ব্যবস্থা নেই।অপহরণ-গণধর্ষণ-খুন। প্রমাণ লোপাটের জন্য একের পর এক নৃশংস পরিকল্পনা। হায়দরাবাদের ঘটনায় অভিযুক্তদের জেরায় উঠে আসছে একের পর এক চাঞ্চল্যকর তথ্য। পুলিশ সূত্রে খবর, সাহায্যের জন্য চিৎকার করছিলেন তরুণী ৷ চিৎকার থামাতে জোর করে তরুণীর মুখে মদ ঢেলে দেয় অভিযুক্তরা ৷তরুণীর মোবাইলও সুইচ অফ করে দেয় তারা৷ এরপরই ট্রাকে তুলে গণধর্ষণ ৷ অচৈতন্য হয়ে পড়েছিলেন তরুণী ৷ এরপর নাক-মুখ চেপে শ্বাসরোধ করে খুন করা হয় তরুণীকে ৷

ধরে পড়ে যাওয়ার ভয় ছিল। তাই খুনের পর দেহ লোপাটের ছক।  কম্বলে দেহ মুড়ে ট্রাকে তোলে অভিযুক্তরা ৷ চতনপল্লিতে একটি ব্রিজের তলায় দেহ রাখা হয় ৷ এরমধ্যেই দুই অভিযুক্ত গিয়ে কিনে আনে পেট্রোল ৷  ব্রিজের তলায় পেট্রোল ঢেলে পুড়িয়ে দেওয়া হয় দেহ ৷ সেই আগুনেই ফেলে দেওয়া হয় তরুণীর মোবাইল সিমও ৷

নারীদের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে হায়দরাবাদের পুলিশ কমিশনার অঞ্জনি কুমার একটি গাইডলাইন প্রকাশ করেছেন ৷ যেখানে লেখা রয়েছে,

১. রাস্তায় যাত্রার সময় নিজের পরিবারের লোকজন/বন্ধুদের জানিয়ে রাখুন ৷
২. শেষ লোকেশন শেয়ার করা প্রয়োজন ৷
৩. কীসে করে যাচ্ছেন, সেটা জানানো প্রয়োজন ৷ ট্যাক্সি এবং অটোতে যাত্রা করলে নম্বর প্লেটের ছবি তুলে রাখুন ৷ প্রয়োজনে ড্রাইভারের আসনের পিছনে রাখা কন্ট্যাক্ট ডিটেলসের ছবিও তুলে রাখুন ৷
৪. কোনও অজানা জায়গায় যাওয়ার আগে রুট সম্পর্কে ঠিকঠাক জেনে নিন ৷
৫. সবসময় কোনও জনবহুল জায়গাতেই অপেক্ষা করুন ৷ একা কোনও শুনশুান বা জনমানবহীন জায়গায় দাঁড়াবেন না ৷ নিজেদের সুরক্ষার স্বার্থেই তা করুণ ৷
৬. প্রয়োজনে ১০০ ডায়াল করুন ৷
৭. যাত্রাপথে কোনও অজানা মানুষের সঙ্গে কথা না বলাই ভাল ৷ এমন ভান করুন যে পুলিশের সঙ্গে বা পরিবারের লোকজনের সঙ্গে ফোন করছেন ৷
৮. কোনও সন্দেহজনক স্থানে অন্যান্য প্যাসেঞ্জারদের থেকে সাহায্য নিতে পারেন ৷
৯. সমস্যায় পড়লে চিৎকার করে সাহায্য নিতে হবে ৷
১০. যাত্রাপথে কোনও তথ্যের ছবি তুলে হোয়াটস্ আপ করতে পারেন  ৯৪৯০৬১৬৫৫৫  নম্বরে।

Mon 2 Dec 2019 16:15 IST | ওয়েব ডেস্ক